আজ-  ,

basic-bank

সাপ্তাহিক ইনতিজার রেজি. ন. ডি-এ ১৭ ৬৮ এর একটি ওয়েব সাইট সংষ্করণ


সংবাদ শিরোনাম :

স্টার্ককে ভয় পেয়েছিলেন মরগান!

অস্ট্রেলিয়ার কাছে হেরে নিজেদের বিশ্বকাপ অভিযান একটু কঠিন করে ফেলেছে স্বাগতিক ইংল্যান্ড। সাবেক ইংল্যান্ড তারকা কেভিন পিটারসেন বলেছেন, ইংল্যান্ডের অধিনায়ক এউইন মরগান অস্ট্রেলিয়ার পেসার মিচেল স্টার্কের মুখোমুখি হতে ভয় পান!

অস্ট্রেলিয়ার বাঁহাতি পেসারদের দাপটে গতকাল উড়ে গেছে ইংল্যান্ড। মিচেল স্টার্ক-জেসন বেহরেনডর্ফদের সামলানোর কোনো উপায় জানা ছিল না ইংলিশ ব্যাটসম্যানদের। অধিনায়ক এউইন মরগান নিজেও ছিলেন নড়বড়ে। অধিনায়কের এই হতোদ্যম অবস্থা দেখে হতাশ হয়েছেন সাবেক তারকা কেভিন পিটারসেনের। অস্ট্রেলীয় পেস তারকা মিচেল স্টার্ককে নাকি মরগান ভয় পেয়েছিলেন বলে কটাক্ষ করেছেন পিটারসেন।
ম্যাচের শুরু থেকেই নতুন বলে আগুন ঝরাচ্ছিলেন স্টার্ক আর বেহরেনডর্ফ। মরগান যখন ক্রিজে আসেন, ১৫ রানে দুই উইকেট হারিয়ে ইংল্যান্ড কাঁপছে। এ অবস্থায় স্টার্কের মুখোমুখি হয়েছিলেন মরগান। কিন্তু পিটারসেন একেবারেই পছন্দ করেননি, মরগান যেভাবে স্টার্ককে খেলেছেন, সে ব্যাপারটি। টুইটারে নিজের হতাশার জানিয়েছিলেন, ‘হায় হায়! মরগান তো স্টার্ককে ভয় পাচ্ছে! এটা খুবই ভয়ের কারণ! স্টার্কের প্রথম বলেই ইংল্যান্ড অধিনায়ক স্কোয়ার লেগে মারছে, যা দেখে আমার মনে হচ্ছে, আগামী এক সপ্তাহে ইংল্যান্ডের ভালোই সমস্যা হতে পারে। আশা করব যেন না হয়, কিন্তু আমি এর আগে কোনো অধিনায়ককে এভাবে নিজের দুর্বলতা দেখিয়ে দিতে দেখিনি।’

ম্যাচ শেষে সংবাদ সম্মেলনে একজন সাংবাদিক মরগানকে পিটারসেনের টুইট পড়িয়ে শোনান। সবকিছু শুনেটুনে মরগান নিজের বিরক্তই প্রকাশ করেছে, ‘নাহ্‌, পিটারসেন যা বলেছে, তার সঙ্গে আমি একমত নই!’ তবে ম্যাচে মরগান যা করেছেন, তাতে পিটারসেনের কথা বিশ্বাস না করে উপায় কোথায়?

সেই স্টার্কের বলেই নিজের উইকেট বিলিয়ে দিয়ে এসেছেন মরগান। কোনো রকমে সাত বল খেলে চার রান করার পর স্টার্কের বলে কামিন্সের হাতে ক্যাচ দেন তিনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Powered By : Intizar24 Developed By : BDiTZone